Learn for Self – Easy Computing পর্ব-২


Learn for Self – Easy Computing পর্ব-২

গত পর্বে কম্পিউটার বেসিক এর একেবারে শুরুর বিষয় নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে। এ পর্বে আমরা কম্পিউটার হার্ডওয়্যার বিষয় নিয়ে জানতে সচেষ্ট হবো। আমাদের এই সিরিজের মূল উদ্দেশ্যে হচ্ছে সহজভাবে শেখা। আজকের বিষয় Learn for Self – Easy Computing পর্ব-২। সিরিজ ভিত্তিক এ টিউটোরিয়ালে আমরা ধারাবাহিকভাবে অগ্রসর হতে থাকবো ইনশিআল্লাহ। তাহলে আর দেরি না করে একেবারে বেসিক বিষয় নিয়ে যারা আগ্রহী, তাদেরকে আমন্ত্রণ জানাই এই সিরিজে সামিল হওয়ার।

 

কম্পিউটার বেসিকঃ পর্ব

হার্ডওয়্যার

কম্পিউটারের যান্ত্রিক অংশসমূহ যেমন গ্রহণমুখ, নির্গমনমুখ, কেন্দ্রীয় প্রক্রিয়াকরণ ইউনিট প্রভৃতি একত্রে কম্পিউটার হার্ডওয়্যার। মোট কথা কম্পিউটারের সকল প্রকার যন্ত্রাংশকে হার্ডওয়্যার বলা হয়।

 

সিপিইউ বা কেন্দ্রীয় প্রক্রিয়াকরণ ইউনিট,  স্থায়ী স্মৃতি, অস্থায়ী স্মৃতি, সহায়ক স্মৃতি, বিভিন্ন প্রকার কার্ড/ এ্যাডাপ্টর বসানোর স্লট, পাওয়ার বোর্ড এবং এইসব যন্ত্রাংশ বসানোর জন্য ব্যবহৃত সার্কিট বোড বা মাদারবোর্ড কম্পিউটারের হার্ডওয়্যার।

 

 

কম্পিউটারের বিভিন্ন যন্ত্রাংশ

একটি ডেস্কটপ কম্পিউটারে রয়েছে কেসিং, মনিটর, কীবোর্ড, মাউস এবং পাওয়ার কর্ড ইত্যাদি। যখন আমরা কম্পিউটার ব্যবহার করে থাকি তখন প্রতিটি যন্ত্রাংশ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে।

 

কম্পিউটার কেসিং

কম্পিউটার কেসিং হচ্ছে মেটাল এবং প্লাস্টিক বক্স এর সমন্বয়ে তৈরি যাতে কম্পিউটারের প্রধান কম্পোনেন্টসমূহ বিদ্যমান রয়েছে যেমন মাদারবোর্ড, সেন্ট্রাল প্রসেসিং ইউনিট(সিপিইউ) বা প্রসেসর, র‌্যাম এবং পাওয়ার সাপ্লাই।

কম্পিউটার কেসিংসমূহ বিভিন্ন আকার ও আকৃতির হয়ে থাকে। নিম্নে একটি ব্রান্ড কম্পিউটারের কম্পিউটার কেসিং এর চিত্র দেওয়া হলোঃ

CPU

এই কেসিং এর সামনের অংশে দেখতে পাচ্ছি অন/অফ বাটন, এক বা একাধিক অপটিক্যাল ড্রাইভ, অডিও পোর্ট এবং ইউএসবি পোর্ট।

CPU Back 002

এই কেসিং এর পিছনের অংশে দেখতে পাচ্ছি পিএসটু কীবোর্ড মাউস পোর্ট, পাওয়ার পোর্ট, ইউএসবি পোর্ট, ল্যান বা ইথারনেট পোর্ট, ডিসপ্লে পোর্ট, ভিজিএ পোর্ট এবং অডিও পোর্ট।

মনিটর

মনিটর কি?

3

  • মনিটর একটি আউটপুট ডিভাইস;
  • কম্পিউটারে প্রক্রিয়াধীন ফলাফল মনিটর স্ক্রিনে প্রদর্শিত হয়;
  • অনেকটা টিভি স্ক্রিনের মতো দেখতে।

মনিটর কাজ করে একটি ভিডিও কার্ড এর সহায়তায় যা কম্পিউটার কেস এর অভ্যন্তরে অবস্থান করে। অধিকাংশ মনিটরে কন্ট্রোল বাটনসমূহ থাকে যা দ্বারা ডিসপ্লে সেটিংস পরিবর্তন করা যায় এবং কিছু মনিটরে বিল্টইন স্পিকার থাকে। বর্তমানে এলইডি LED (light-emitting diode)  মনিটর সহজলভ্য। এর আগে এলসিডি LCD (liquid crystal display) মনিটর এবং তারও সিআরটি CRT (cathode ray tube) আগে প্রচলিত ছিল।

কীবোর্ড

কীবোর্ড কি?

6

  • একটি ইনপুট ডিভাইস;
  • অনেকটা টাইপরাইটারের মতো;
  • কম্পিউটারে কোনো কিছু লিখতে কীবোর্ডে টাইপ করতে হয়।

একটি কম্পিউটারের সংগে সংযোগ স্থাপনের প্রধান উপায় হচ্ছে কীবোর্ড যাকে ইনপুট ডিভাইস বলা হয়। একজন ব্যবহারকারী এই কীবোর্ড এর সহায়তায় কম্পিউটারকে বিভিন্ন নির্দেশনা দিয়ে থাকে। বিভিন্ন ধরনের কীবোর্ড রয়েছে। একটি স্ট্যান্ডার্ড কীবোর্ডে ইংরেজি অক্ষর বিদ্যমান থাকে। অবশ্য আমাদের দেশে কীবোর্ডে ইংরেজী লেআউটের পাশাপাশি বাংলা বিজয় লেআউট অন্তর্ভুক্ত করা আছে।

 

 

মাউস

মাউস কি?

7

  • মাউস একটি ইনপুট ডিভাইস;
  • এটি একটি নেভিগেশন এবং সিলেকশন টুল;
  • কম্পিউটারে কোনো কিছু নির্দেশনা প্রদান করতে এটি ব্যবহৃত হয়।

 

কীবোর্ডের ন্যায় মাউস ইনপুট ডিভাইস হিসেবে কাজ করে। একটি কম্পিউটারের সংগে সংযোগ স্থাপনের আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম হচ্ছে মাউস। একজন ব্যবহারকারী মনিটর বা স্ক্রীনে প্রদর্শিত কাজের ধরন অনুসারে মাউস দিয়ে খুব সহজেই ও দ্রুত কমান্ড প্রয়োগ করতে এবং অন্যান্য কাজ সম্পাদন করতে পারে।

 

কীপ্যাড

একটি ল্যাপটপে মাউসের বিকল্প হিসেবে কীপ্যাড ব্যবহার করা যায়। অনেক ব্যবহারকারী অতিরিক্ত মাউস ব্যবহার না করে কীপ্যাড ব্যবহার করে স্বচ্ছন্দে কাজ সম্পাদন করে থাকেন।

 mous pad

 

প্রিন্টার

প্রিন্টার কি?

small-printer-white

  • প্রিন্টার একটি আউটপুট ডিভাইস;
  • মনিটরে প্রদর্শিত ফলাফল কাগজে প্রিন্ট করে উপস্থাপন করা যায়।

 

২য় পর্বে আর দীর্ঘায়িত না করে এখানেই আলোচনার সমাপ্তি ঘোষণা করছি। আবার কথা হবে একই প্লাটফরমে Learn for Self – Easy Computing সিরিজে। পরবর্তী সিরিজে একটু গভীরে যাওয়ার চেষ্টা করবো ইনশিআল্লাহ। সকলের মঙ্গল কামনা করছি।

 

প্রশ্নউত্তর এবং মতামত

আপনারা চাইলে এই সিরিজের উপর যেকোনো প্রশ্ন করতে পারেন। সেই সঙ্গে আপনারা মতামত উপস্থাপন করতে পারেন অকপটে। এখানে বলে রাখা ভালো, কিছু কম্পিউটার ব্যবহারকারীর অনুরোধে আমার এ ধরনের লেখালেখির সূত্রপাত। এই সিরিজসমূহ একেবারে বিগেনারস লেভেল থেকে মিড লেভেলের ব্যবহারকারীর কাজে আসবে বলে আশা রাখি। আমাদের দেশে শতভাগ ভালো ব্যবহারকারী তৈরি হোক এই প্রত্যাশা রইল। আর এজন্য চাই আপনাদের সহযোগিতা।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>